avertisements 2

হার্ট অ্যাটাকে বাবার মৃত্যু, অনাহারে মারা গেল দুই বছরের সন্তানও

ডেস্ক রিপোর্ট
প্রকাশ: ১২:০০ এএম, ১৯ জানুয়ারী,শুক্রবার,২০২৪ | আপডেট: ১১:৫৩ এএম, ২৯ ফেব্রুয়ারী,বৃহস্পতিবার,২০২৪

Text

 ছবি : ফেসবুক থেকে সংগৃহীত

যুক্তরাজ্যে ব্রনসন ব্যাটারসবি নামের দুই বছর বয়সী এক ছেলেকে তার বাবার মৃতদেহের পাশে মৃত অবস্থায় পাওয়া গেছে। অনাহারে শিশুটির মৃত্যু হয়েছে। তার বাবা দুই সপ্তাহ আগে মারাত্মক হার্ট অ্যাটাকের শিকার হয়েছিলেন। ৯ জানুয়ারি লিংকনশায়ারে বাড়িতে ৬০ বছর বয়সী বাবা কেনেথের পাশে ব্রনসনকে মৃত অবস্থায় পাওয়া যায়।

বিবিসি এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

ব্রনসন ও কেনেথকে শেষ দেখা গিয়েছিল ২৬ ডিসেম্বর কেনেথের হার্ট অ্যাটাকের কিছুক্ষণ আগে। বাবার মৃত্যুর পর শিশুটির যত্ন নেওয়ার মতো আর কেউ ছিল না। লিংকনশায়ার কাউন্টি কাউন্সিল এ মৃত্যুর বিষয়ে একটি পর্যালোচনা শুরু করেছে।

বিবিসি অনুসারে, ২৭ ডিসেম্বর কেনেথ যোগাযোগ করার পর একজন সমাজকর্মী ২ জানুয়ারি তাঁর বাড়িতে যান। তবে তিনি কোনো সাড়া না পেয়ে এবং শিশুটিকে খোঁজার পর পুলিশের সঙ্গে যোগাযোগ করেন। ওই সমাজকর্মী দুই দিন পর আবারও বাড়িটিতে যান এবং সেবারও কোনো সাড়া না পাওয়ায় আবারও পুলিশের সঙ্গে যোগাযোগ করেন। কয়েক দিন পর বাড়ির মালিকের কাছ থেকে চাবি নিয়ে ওই সমাজকর্মী বাড়িতে ঢোকেন।
তখন বাবা ও ছেলের লাশ পাওয়া যায়।

গণমাধ্যমটির সঙ্গে কথা বলতে গিয়ে লিংকনশায়ার কাউন্টি কাউন্সিলের শিশুদের পরিষেবার নির্বাহী পরিচালক হেদার স্যান্ডি এ মৃত্যুকে ‘বিধ্বংসী’ বলে বর্ণনা করেছেন। তিনি বলেন, ‘এটি একটি ট্র্যাজেডি। কেনেথ হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন। তিনি ব্রনসনের সঙ্গে বাড়িতেই ছিলেন।
ব্রনসনের যত্ন নেওয়ার জন্য আর কেউ ছিল না। দুঃখজনকভাবে এর ফলস্বরূপ ব্রনসনও মারা গেছে।’

দ্য গার্ডিয়ানের মতে, ছেলেটির মা সারা পিসে বলেছেন, তিনি কেনেথের সঙ্গে বিবাদের পর ক্রিসমাসের আগে তাঁর ছেলেকে শেষবার দেখেছিলেন। কেনেথ ২৯ ডিসেম্বরের আগে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন বলে ধারণা করা হচ্ছে। অন্যদিকে সারার দেখা ময়নাতদন্তের প্রতিবেদন অনুসারে, ব্রনসন পানিশূন্যতা এবং অনাহারে মারা গেছে বলে মনে করা হচ্ছে।

লিংকনশায়ার পুলিশ বলেছে, তারা বাবা ও ছেলের মৃত্যুকে সন্দেহজনক হিসেবে বিবেচনা করছে না।

সূত্র : এনডিটিভি

বিষয়:

আরও পড়ুন

avertisements 2