avertisements

১০ হাজার কেজি চাল ২৮ মণ মাংস দিয়ে ভাসানচরে রোহিঙ্গাদের পিকনিক

ডেস্ক রিপোর্ট
প্রকাশ: ১২:১২ এএম, ২৪ জানুয়ারী,রবিবার,২০২১ | আপডেট: ১১:০৩ এএম, ৬ মার্চ,শনিবার,২০২১

Text

নোয়াখালীর হাতিয়ার ভাসানচরে রোহিঙ্গাদের আবাস্থলের ৫নং ক্লাস্টারের পাশে খেলার মাঠে পিকনিকে বিশেষ ভোজ, ক্রীড়া প্রতিযোগিতা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান হয়েছে।

[৩] বৃহস্পতিবার পিকনিক বিষয়ে রোহিঙ্গদের আশ্রয়ন প্রকল্পের পরিচালক কমোডর আবদুল্লাহ আল মামুন বলেন, সরকারের আর্থিক সহায়তায় রোহিঙ্গা শিশু ও নারীদের অংশগ্রহণে বিভিন্ন ধরনের ক্রীড়া প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়। দুপুরে চট্টগ্রামের ঐতিহ্যবাহী মেজবানী খাবারের আয়োজন করা হয়। মেজবানীতে ১০ হাজার কেজি চাল ও ২৮ মণ মাংস ছিল। মেজবানী রান্নার জন্য চট্টগ্রাম থেকে ১৫ জন বাবুর্চি ভাসানচর আসেন। বিকেলে ও সন্ধ্যায় রোহিঙ্গাদের পরিবেশনায় বিশেষ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

হাতিয়া থানার ওসি মাহে আলম বলেন, নৌবাহিনীর পৃষ্ঠপোষকতায় ১০ হাজার কেজি চাল ও ২৮ মণ মাংস দিয়ে চট্টগ্রামের ঐতিহ্যবাহী মেজবানি করা হয়। বিকালে রোহিঙ্গাদের পরিবেশনায় বিশেষ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়।

তিনি বলেন, ভাসানচরে আসা রোহিঙ্গারা দিনব্যাপী আনন্দ উল্লাস করেন। তাদের আনন্দের খবর পেয়ে যাতে কক্সবাজারের রোহিঙ্গারা যাতে ভাসানচরে আসতে আগ্রহী হয়, সে জন্য নৌবাহিনীর পৃষ্ঠপোষকতায় এ পিকনিকের আয়োজন করা হয়।

ভাসানচর মেঘনা নদী ও বঙ্গোপসাগরের মোহনায় জেগে উঠা ৬৫ বর্গ কিলোমিটার আয়তনের এক বিচ্ছিন্ন দ্বীপ। মায়ানমার থেকে বাস্তুচ্যুত এক লাখ রোহিঙ্গাকে ভাসানচর আশ্রয়ণ প্রকল্প-৩ এ স্থানান্তরের সরকারের পরিকল্পনার অংশ হিসেবে ভাসানচরে বসবাসরত রোহিঙ্গা ও অন্যান্যদের নিরাপত্তা বিধান ও আইন-শৃঙ্খলা নিশ্চিতকল্পে ভাসানচর থানা স্থাপিত হয়েছে।

উল্লেখ্য, বর্তমানে ভাসানচরে ৩ হাজার ৭৬২ জন রোহিঙ্গা বসবাস করছেন। এ থানা গঠনের ফলে তাদের নিরাপত্তা বিধানসহ সামগ্রিক আইন-শৃঙ্খলা নিশ্চিত করা সম্ভব হবে। পরে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের জননিরাপত্তা বিভাগের সিনিয়র সচিব এবং আইজিপি প্রত্যেকে থানা চত্বরে একটি করে গাছের চারা রোপণ করেন।

 

বিষয়:

আরও পড়ুন

avertisements