Main Menu

শাহে জামান টিটুকে নিয়ে ফেসবুকসহ বিভিন্ন মাধ্যমে অপপ্রচারের নিন্দা ও প্রতিবাদ

কেন্টারবেরি-ব্যাংকসটাউন কাউন্সিল  থেকে শাহে জামান টিটুর পদত্যাগকে কেন্দ্র করে তার বিরুদ্ধে ফেসবুকসহ বিভিন্ন মাধ্যমে অপপ্রচার ও কুৎসা রটনার নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন বিশিষ্ট ব্যবসায়ী, সমাজ সেবক মাল্টিকালচারাল সোসাইটি অব ক্যাম্বেলটাউনে ইনকের কার্যনির্বাহী কমিটির সভাপতি এনাম হক, সিনিয়র সহ সভাপতি ও  বিশিষ্ট ব্যবসায়ী জাহাঙ্গীর আলম, জেনারেল সেক্রেটারী ও ৯০ দশকের তুখোড় ছাত্রনেতা মো: সফিকুল আলম, বাংলাকথার নির্বাহী সম্পাদক আউয়াল খান সহ আরো অনেকে । তারা নামে-বেনামে ফেসবুকে আইডি খুলে  শাহে জামান টিটু সম্পর্কে কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য ও মিথ্যা-বানোয়াট অপপ্রচারের ঘটনায় ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, একটি স্বার্থান্বেষী কুচক্রী মহল শাহে জামান টিটুকে নিয়ে মিথ্যা সংবাদ পরিবেশন করে গুজব ছড়াচ্ছে,  তারা ওই বানোয়াট সংবাদ প্রকাশ এবং ফেসবুকে তা ভাইরাল করেছে । তার আকস্মিক পদত্যাগ ও তা পুঁজি করে নানা ধরনের অপপ্রচারে আমরা গভীরভাবে মর্মাহত। নিঃ সন্দেহে টিটুর পদত্যাগ কমিউনিটির জন্য অপূরণীয় ক্ষতি। কিন্তু কুচক্রী মহল মিথ্যা বানোয়াট ভিত্তিহীন সংবাদ প্রকাশের মাধ্যমে তার ব্যক্তিগত সুনাম,সামাজিক মর্যাদাহানী  ও তার নৈতিক চরিত্রে কলঙ্ক লেপন করার যে অপচেষ্টা করেছে তা অস্ট্রেলিয়ার বাংলাদেশীদের তারা প্রত্যাখ্যাত হয়েছে এবং ষড়যন্ত্রকারীরা আস্তকুড়ে নিক্ষিপ্ত হয়েছে কারন গুটি কয়েক ব্যাক্তি ছাড়া দলমত নির্বিশেষে কমিউনিটির সকলে শাহে জামান টিটুর সমর্থনে প্রকাশ্যে এগিয়ে এসেছে। তার এই ধরনের জনপ্রিয়তা একদিনে তৈরী হয়নি। দীর্ঘদিন ধরে দলমত  নির্বিশেষে নিঃস্বার্থ ভাবে প্রতিটা মানুষের ডাকে সাড়া দেওয়া এবং অস্ট্রেলিয়াতে বাংলাদেশী কমিউনিটির উন্নয়নে নিরলসভাবে কাজ করার মাধ্যমে মানুষের মনের মনিকোঠায় স্হান করে নিয়েছে।  


তারা আরো বলেন, আর্থিক টানাপোড়নে দেউলিয়া হওয়া কোন অপরাধ নয়। অস্ট্রেলিয়ার শীর্ষ ও বিশ্বের এক সময়কার ১০ম   ধনী এলান বন্ড ও আর্থিক টানাপোড়নে নিজেকে দেউলিয়া ঘোষনা করতে বাধ্য হয়েছিলেন।  আজ যে কোটিপতি‚ কাল সে কপর্দকহীন। শুধু এলান বন্ড নন, অর্থের চূড়া থেকে অতলে পড়ে যাওয়ার উদাহরণ বিশ্বের বিভিন্ন দেশে  আছে অজস্র, তাদের মধ্যে হ্যারি এন্ড মলি, ফ্রান্সিস ফ্রড কোপালা, প্যাট্রিশিয়া ক্রুজ, সিন কুইনের নাম বিশেষভাবে উল্লেখযোগ্য। আবার  বিশ্বে অনেকেই ঐ অবস্হা কাটিয়ে সফল হয়েছে। যার বড় উদাহরন হচ্ছে ডোনাল্ড ট্রাম্প যিনি দেউলিয়া ব্যবসায়ী থেকে আমেরিকার প্রেসিডেন্ট হয়েছে। আমরা বিশ্বাস করি শাহে জামান টিটু বর্তমান সংকট কাটিয়ে উঠে অস্ট্রেলিয়ার জাতীয় রাজনীতিতে অস্ট্রেলিয়ান বাংলাদেশীদের জন্য আরো নতুন নতুন দৃষ্টান্ত স্হাপন করবেন।


 


ADVERTISEMENT

Contact Us: 8 Offtake Street, Leppington, NSW- 2569, Australia. Phone: +61 2 96183432, E-mail: editor@banglakatha.com.au , news.banglakatha@gmail.com

ADVERTISEMENT