avertisements

বাংলা শিখছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি

ডেস্ক রিপোর্ট
প্রকাশ: ০৫:৪৯ পিএম, ১১ ফেব্রুয়ারী,বৃহস্পতিবার,২০২১ | আপডেট: ০৫:৫৪ পিএম, ১৮ এপ্রিল,রবিবার,২০২১

Text

পশ্চিমবঙ্গে তৃণমূল কংগ্রেসকে হটিয়ে মসনদও দখল করতে মরিয়া বিজেপি। এ জন্য অবাঙালি তকমা ঘোচাতেও তৎপর গেরুয়া শিবির। খবর বেরিয়েছে, এ অঞ্চলের ভোটারদের মন জয় করার জন্য বাংলা শিখছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। এ খবর জানিয়েছে পশ্চিমবঙ্গের সংবাদমাধ্যম দৃষ্টিভঙ্গি।

খবরে বলা হয়, মোদিকে বাংলা ভাষা শেখানোর জন্য ভারতীয় প্রধানমন্ত্রীর বাসভবনে একজন ‘শিক্ষক’ নিয়োগ করা হয়েছে।

একদিকে যেমন ভাষাশিক্ষা চলছে, অন্যদিকে মোদি স্বয়ং রবীন্দ্রনাথের শরণাপন্ন হয়েছেন। সাজগোজে পরিপাটি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর দাড়ি-গোঁফ বরাবরই নিখুঁতভাবে ট্রিম করা থাকে। কিন্তু লকডাউনের সময়কালে দেখা যাচ্ছে, দেশটির প্রধানমন্ত্রীর দাড়ি ও গোঁফের দৈর্ঘ্যই বেড়েছে। মাথার পেছনের চুলও লম্বা হয়েছে। অনেকেই বলছেন উনি রবীন্দ্রনাথকে কপি করতে চাইছেন।

ভারতীয় সোশ্যাল মিডিয়াজুড়ে দাবি করা হচ্ছে, বাঙালির মন পেতে বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের মতো দাড়ি রাখছেন প্রধানমন্ত্রী। এমনকি রবীন্দ্রনাথ ও মোদীর ছবি পাশাপাশি বসিয়ে দাড়ির তারতম্যও বুঝিয়ে দেওয়া হয়েছে, যেখানে দু’জনের দাড়ি প্রায় একইরকম দেখাচ্ছে।

বিধান সভার নির্বাচনের আগে এটি যে, বাঙালি আবেগকে কাজে লাগানোর গেরুয়া শিবিরের প্রয়াস তা অস্বীকার করার কোনো উপায় নেই। 

এদিকে ভারতের সংসদে তৃণমূল কংগ্রেসের এমপি সৌগত রায়ও সরাসরি এ দাবি করেন। তিনি বলেন, ‘বাংলাকে বোঝার চেষ্টা নেই। রবীন্দ্রনাথ সাজার চেষ্টায় বড় দাড়ি রাখছেন (ভারতের) প্রধানমন্ত্রী (নরেন্দ্র মোদি)।

বিষয়:

আরও পড়ুন

avertisements