Main Menu

তেল পাহারা দিতে সিরিয়ায় ২০০ সেনা মোতায়েন রাখবে যুক্তরাষ্ট্র

সিরিয়ার উত্তরাঞ্চল থেকে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র তার সব সেনা প্রত্যাহার করে নিয়েছে বলে খবর প্রকাশিত হওয়া সত্ত্বেও মার্কিন প্রতিরক্ষামন্ত্রী মার্ক এসপার বলেছেন, সিরিয়ায় তেলের খনিগুলোর নিরাপত্তা রক্ষার স্বার্থে কিছু সেনা উত্তর সিরিয়ায় রেখে দেয়া হতে পারে।

তিনি সোমবার এক বক্তৃতায় দাবি করেন, সিরিয়ার উত্তরাঞ্চলে কুর্দি গেরিলাদের নিয়ন্ত্রণে থাকা তেল ক্ষেত্রগুলো যাতে দায়েশ (আইএস) বা অন্য কোনো সন্ত্রাসী গোষ্ঠীর দখলে চলে না যায় সে বিষয়টি তদারকির জন্য ওই অঞ্চলে ২০০ মার্কিন সেনা মোতায়েন রাখা হবে।

সম্প্রতি মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প উত্তর সিরিয়া থেকে তার দেশের সব সেনা প্রত্যাহার করা হবে বলে ঘোষণা দেন। ট্রাম্পের ওই ঘোষণাকে সিরিয়ার উত্তরাঞ্চলে আগ্রাসন চালানোর সবুজ সংকেত হিসেবে গ্রহণ করে তুরস্ক। তুর্কি সরকার উত্তর সিরিয়ায় তৎপর কুর্দি গেরিলাদের দমনের উপযুক্ত সুযোগ পেয়ে তা কাজে লাগাতে দেরি করেননি। গত এক সপ্তাহেরও বেশি সময় ধরে ওই অঞ্চলে তুর্কি হামলা চলছে।

সিরিয়ার উত্তরাঞ্চল থেকে যুক্তরাষ্ট্র আদৌ সব সেনা সরিয়ে নেবে কিনা তা নিয়ে যখন ব্যাপক জল্পনা চলছিল তখন সেখানে ২০০ সেনা মোতায়েন রাখার ইঙ্গিত দিলেন মার্কিন প্রতিরক্ষামন্ত্রী এসপার।

এদিকে সিরিয়ার তেল সম্পদের ওপর মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের লোলুপ দৃষ্টির বিষয়টি গোপন রাখতে পারেননি খোদ মার্কিন কর্মকর্তারা। ডোনাল্ড ট্রাম্পের ঘনিষ্ঠ হিসেবে পরিচিত রিপাবলিকান সিনেটর লিন্ডসে গ্রাহাম সম্প্রতি বলেছেন, সিরিয়ার তেল ক্ষেত্রগুলোর ওপর নিয়ন্ত্রণ প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে কুর্দি গেরিলাদের সঙ্গে ওয়াশিংটনের একটি গোপন সমঝোতা হয়েছে।


ADVERTISEMENT

Contact Us: 8 Offtake Street, Leppington, NSW- 2569, Australia. Phone: +61 2 96183432, E-mail: editor@banglakatha.com.au , news.banglakatha@gmail.com

ADVERTISEMENT