Main Menu

ক্যাম্বেলটাউনের মাল্টিকালচারাল উৎসবে নানা ভাষা-বর্ণের মানুষের স্বতঃস্ফূর্ত অংশগ্রহণ

গত ১ সেপ্টেম্বর রবিবার মাল্টিকালচারাল সোসাইটি ক্যাম্বেলটাউনের কর্তৃক আয়োজিত থ্যাংকস গিভিং লাঞ্চ ও মাল্টিকালচারাল ডে উদযাপন অনুষ্ঠানে বহুভাষী মানুষের উপস্হিতি ও সুরের মুর্ছনার উষ্ণতায় ভরে উঠেছিল  ক্যাম্বেলটাউনের ইঙ্গলবার্নের গ্রেগ পারসিভাল কমিউনিটি সেন্টারে হল। 


দুপুর ১  থেকে বিকাল পাঁচটা পর্যন্ত ছন্দপতনহীনভাবে চলা সমাবেশের নানা পর্বে আলোচনা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে অংশ নেন বিভিন্ন ভাষাভাষীরা। রওনক মিয়া ও এ্যানি সাবরিনের প্রানবন্ত উপস্হাপনায় শুরুতেই উপস্থিত সবাইকে স্বাগত জানিয়ে শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন মাল্টিকালচারাল সোসাইটি ক্যাম্বেলটাউনের সভাপতি এনাম হক। তিনি এই বছরের  মাল্টিকালচারাল বৈশাখী মেলা সফল করা ও  সাপ্তাহিক উপভোগ্য সময়কে উপেক্ষা করে শিশু-কিশোরসহ দূর-দূরান্ত থেকে আসা আগতদের অভিনন্দন জানিয়ে এ ধরনের অনুষ্ঠান আগামীতেও অব্যাহত রাখা ও আগামী বছরের  আগামী বছরের ৪ এপ্রিল ২০২০ ক্যাম্বেলটাউন স্পোর্টস স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিতব্য মাল্টিকালচারাল বৈশাখী ফেস্টিভাল সফল করার জন্য সকলের সহযোগিতা কামনা করেন।এরপর ক্যাম্বেলটাউন সিটি কাউন্সিলের মেয়রের পক্ষ থেকে শুভেচ্ছা জানিয়ে বক্তব্য রাখেন কাউন্সিলর মাসুদ চৌধুরী। ক্যাম্বেলটাউন সিটি কাউন্সিলের আরেক কাউন্সিলর র‌্যা মোনাটও অনুষ্ঠানে উপস্হিত হয়ে আয়োজকদের ভূয়সী প্রশংসা করেন। ক্যাম্বেলটাউন ২০২০ বাইসেন্টেনারীর প্রোগাম কো অর্ডিনেটর টবি চ্যাপম্যান আগামী বছরের অনুষ্ঠানটি নিয়ে আলোকপাত করেন। 


এরপর অতিথিরা  বিভিন্ন কমিউনিটির পক্ষ থেকে শুভেচ্ছা বক্তব্য দেন। এই সময় নেপালী কমিউনিটির পক্ষে ঊষা খাদকা, ভারতীয় কমিউনিটির পক্ষে অমর সিং, ফিলিপিনো কমিউনিটির পক্ষে লিন সান্তিয়াগো, পাকিস্তানী কমিউনিটির পক্ষে  রূখসানা জামান, আফগান কমিউনিটির পক্ষে তাহেরা জাহানবিন, বাংলাদেশী কমিউনিটির পক্ষে আসমা আলম কাসফী । 

আলোচনার ফাকে বিভিন্ন ধরনের নৃত্য ও বিভিন্ন ভাষায় গান পরিবেশন নানা বয়সীরা । বাংলাদেশী কমিউনিটির পক্ষে এই সকল পরিবেশনায় অংশগ্রহন করে কিশলয় মিউজিক্যাল স্কুল, নুরুন নাহার টুম্পা ও আশিক আহমেদ সুজন।  

সবশেষে অনুষ্ঠানটির সমন্বয়কারী মোঃ শফিকুল আলম অনুষ্ঠানটি সফল করার  সকলকে ধন্যবাদ জানান এবং ২২ সেপ্টেম্বর মিন্টোর রনমুর কমিউনিটি সেন্টার আয়োজিত  ডোমেস্টিক ভায়োলেন্স এর ওপর আয়োজিত সেমিনারে সকলের উপস্হিতি কামনা করেন।  

অনুষ্ঠানে ছিল  নানা ভাষার পরিবেশনা। কিন্তু সব পরিবেশনার সুর ও বক্তব্য অভিন্ন। আর এমনি এক অভিন্ন  ছন্দ-সুরের ব্যঞ্জনায় মুখরিত হয়ে উঠেছিল রোববারের ক্যাম্বেলটাউনের মাল্টিকালচারাল  উৎসবের সমাবেশ। জাতি-গোষ্ঠী, ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে এক মেলবন্ধন সূচিত হয়েছিল মানবতার সূত্র ধরে।  সকলের কন্ঠে উচ্চারিত হয়েছে মানুষ ও মানাবিকতার জয়ধ্বনি। 


ADVERTISEMENT

Contact Us: 8 Offtake Street, Leppington, NSW- 2569, Australia. Phone: +61 2 96183432, E-mail: editor@banglakatha.com.au , news.banglakatha@gmail.com

ADVERTISEMENT