Main Menu

পরিষ্কার রাস্তায় ময়লা ফেলে ফটোসেশনে ঢাবি ভিসি!

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) পরিষ্কার রাস্তায় কর্মচারীরা ময়লা ফেলার কিছুক্ষণ পর ‘ক্লিন ক্যাম্পাস উইক’ কর্মসূচি উদ্বোধন করতে আসেন উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান। তিনি ঘটনাস্থলে আসার পরই শুরু হয় ফটোসেশন। উপাচার্যের রাস্তা পরিষ্কারের সেই ছবি এখন সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল।

আজ সোমবার বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী, মহান স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী এবং ঢাবির শতবর্ষপূর্তি উদযাপন উপলক্ষে এই কর্মসূচির আয়োজন করা হয়।

জানা যায়, সোমবার সকাল ১১ টায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান ‘ক্লিন ক্যাম্পাস উইক’ উদ্বোধনের কিছুক্ষণ আগে পরিচ্ছন্ন কর্মীরা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র-শিক্ষক কেন্দ্র প্রাঙ্গণে ময়লা ফেলে যায়।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক পরিচ্ছন্ন কর্মী বলেন, ‘ আমাদের যেভাবে বলা হয়েছে আমরা সেভাবে কাজ করেছি। স্যারদের যেন সুবিধা হয় তাই আগ থেকেই এসব ময়লা এখানে আনা হয়েছে। স্যার চলে গেলে এগুলো আমরাই পরিষ্কার করব।’

একাধিক প্রতক্ষ্যদর্শী শিক্ষার্থী বলেন, ‘আমরা সকালেও এ জায়গাটি পরিষ্কার থাকতে দেখি। হঠাৎ ভিসি স্যারের প্রোগ্রামের আগে দেখি বিভিন্ন, পলিথিন, প্লাস্টিকের চায়ের কাপ, ডাবের খোসাসহ বিভিন্ন জিনিস পরে আছে। এ ময়লাগুলো একটু আগেও পরিচ্ছন্ন কর্মীরদের ভ্যানে দেখেছি।

অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ সামাদ, কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড. মো কামাল উদ্দীন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক ড. এ এস এম মাকসুদ কামাল ডাকসুর এজিএস সাদ্দাম হোসেন, সমাজসেবা সম্পাদক আকতার হোসেন, ডাকসুর সদস্য তিলোত্তমা শিকদারসহ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক কর্মকর্তা, কর্মচারী ও ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা।

কিছুদিন আগে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের মেয়র আতিকুল ইসলাম একই কাণ্ড ঘটিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ট্রলের শিকার হয়েছিলেন। এবার সে পথে হাঁটলো ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনও। বিষয়টি নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা প্রশাসনের তীব্র সমালোচনা করেছেন।

তবে ময়লা ফেলানোর বিষয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামন এড়িয়ে যান। তিনি গণমাধ্যমকে বলেন, ‘আমরা সবাইকে পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতা থাকার জন্য আহ্বান করব। কেউ যেন ময়লা না ফেলে সে বিষয়ে অনুরোধ করব।

এর আগে সকালে কর্মসূচি উদ্বোধনকালে উপাচার্য আখতারুজ্জামান বলেন, ‘একটি সুন্দর, স্বাস্থ্যসম্মত, পরিচ্ছন্ন ও নান্দনিক ক্যাম্পাস নির্মাণের লক্ষ্যে প্রতি মাসের প্রথম সপ্তাহে ক্লিন ক্যাম্পাস উইক শীর্ষক পরিচ্ছন্নতা অভিযান পরিচালিত হবে। বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন ও ডাকসুর যৌথ উদ্যোগে পরিচালিত এই অভিযানের ফলে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা নিয়ে আমাদের মনস্তাত্ত্বিক জগতের একটি পরিবর্তন হবে।


ADVERTISEMENT

Contact Us: 8 Offtake Street, Leppington, NSW- 2569, Australia. Phone: +61 2 96183432, E-mail: editor@banglakatha.com.au , news.banglakatha@gmail.com

ADVERTISEMENT