Main Menu

কোচ এবং মাশরাফির অনুরোধেই দলে তাসকিন-ফরহাদ রেজা!

আগেরদিন সন্ধ্যায় জানা গিয়েছিল ফরহাদ রেজার নাম। আজ দুপুরে বিসিবির ক্রিকেট অপারেশন্স কমিটির সভাপতি আকরাম খানের তরফে জানা গেলো, ফরহাদ রেজার সঙ্গে আয়ারল্যান্ডে ত্রিদেশীয় সিরিজের সঙ্গে যুক্ত হচ্ছেন পেসার তাসকিন আহমেদও।

বিশ্বকাপের দল ঘোষণার সময়ই আয়ারল্যান্ডের ত্রিদেশীয় সিরিজের জন্য অতিরিক্ত হিসেবে ইয়াসির আলি রাব্বি এবং নাঈম হাসানের নাম জানিয়ে রেখেছিলেন প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদিন নান্নু। এবার তাদের সঙ্গে আরও দু’জনকে পাঠানো হচ্ছে দলের সঙ্গে। এরা হলেন ফরহাদ রেজা এবং তাসকিন।

হঠাৎ কেন এই দু’জনকে দলে অন্তর্ভূক্ত করা হলো? এমন প্রশ্নের জবাব দিয়েছেন আকরাম খান। তিনি জানান কোচের চাহিদার কারণেই এই দুই ক্রিকেটারকে নেয়া হয়েছে দলে।

আকরাম খান বলেন, ‘১৭ জন ছিল, তবে ইনজুরি সমস্যা এবং কোচের কিছু পরিকল্পনা থাকার কারণে এবং বিশেষ করে অনেক অনুরোধ করার পর আমরা আরও দুইজন বাড়িয়েছি। ১৯ জন যাবে এবং দলের সাথে অনুশীলন করবে সেখানে।’

মাশরাফির কথা না বললেও, আকরাম খান সরাসরি কোচের কথা বলেছেন এখানে। তিনি বলেন, ‘কিছু পরিকল্পনার জন্য সে (কোচ স্টিভ রোডস) অনেক অনুরোধ করেছে, এ কারণে আমরা দুই জনকে বাড়িয়েছি। তারা হলো তাসকিন এবং ফরহাদ রেজা। ইনজুরি সমস্যা নিয়ে সবাই ঠিক অবস্থানে নেই, এ কারণেই সে এই অনুরোধটি করেছে।’

তবে ভেতরের খবর হলো মাশরাফি এবং কোচ স্টিভ রোডস- দু’জনই একজন দ্রুত গতির বোলার চেয়েছেন টিম ম্যানেজমেন্টের কাছে। ইংল্যান্ডের কন্ডিশনে একজন দ্রুতগতির বোলার খুব প্রয়োজন। আর এ ক্ষেত্রে তাসকিন ছাড়া বিকল্পও হাতে নেই। আগে থেকেই জানা কথা, মাশরাফি বিশ্বকাপের জন্য তাসকিনকে ছেয়েছেন আরও অনেক আগে। তাসকিন যখন ইনজুরি কাটিয়ে রিহ্যাব করে মাঠে নামার প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন তখনই ম্যানেজমেন্টের কাছে তাসকিনের ব্যাপারে বলে রেখেছিলেন অধিনায়ক মাশরাফি।

Taskin-Mash

তো, বিশ্বকাপের দলেও কি তবে তাসকিন সুযোগ পাচ্ছেন? অর্থ্যাৎ, বিশ্বকাপের দলে কোনো পরিবর্তন আসছে কি না? জানতে চাইলে আকরাম খান বলেন, ‘বিশ্বকাপের যে দল দেয়ার কথা সেটি আমরা দিয়েছি। তবে সুযোগ থাকবে। যদিও ইনজুরি ছাড়া পরিবর্তন হওয়ার সম্ভাবনা খুব কম। যেহেতু নির্বাচকরা সেরা দলটিই নির্বাচন করেছেন, এখন আল্লাহর রহমতে ইনজুরি যদি না হয় তাহলে সম্ভাবনা খুবই কম পরিবর্তন হওয়ার।’

আগের ১৫ জনের কাউকে বাদ না দিয়ে কি বিশ্বকাপে খেলোয়াড় বাড়ানো যাবে? এ সম্পর্কে জানতে চাইলে আকরাম খান বলেন, ‘সেটি আমরা এখনও চিন্তা করিনি। যেহেতু আমরা বিশ্বকাপে খেলোয়াড় বাড়ানোর চিন্তা করছি না। আর সেখানে (ইংল্যান্ডে) কিন্তু একদিনেই খেলোয়াড় পাঠানো সম্ভব। এটি ওয়েস্ট ইন্ডিজ বা নিউজিল্যান্ড হলে একটু কঠিন হতো। যে কারণে আমরা আগে বেশি খেলোয়াড় নিয়ে যেতাম। তবে ইংল্যান্ডে দিনে দিনে খেলোয়াড় পৌঁছানো যাবে, তাই ওই বিষয়টি মাথায় রাখিনি। টুর্নামেন্ট চলাকালে এখানে কোচদের অধীনে কিছু খেলোয়াড় ট্রেনিং করবে।’

তাসকিনের ব্যাপারে ক্রিকেট অপারেশন্স কমিটির কাছে জানতে চাওয়া হলে তিনি বলেন, ‘গত দুই দিন নাকি সে ভালো বোলিং করেছে, আমাদের বোলিং কোচ কোর্টনি ওয়ালশ বলেছে, সে ভালো করছে। এখন গুরুত্বপূর্ণ হলো ম্যাচে পারফরম্যান্স ভালো করা। এটি খেলোয়াড়দের জন্য অনেক গুরুত্বপূর্ণ। সেখানে হয়তো সে এক দুইটি সুযোগ পাবে এবং সেখানেও পারফর্মেন্স দেখাতে পারে।’

ফরহাদ রেজার সম্ভাবনা নিয়ে আকরাম খানের মন্তব্য ইন্টারেস্টিং। তিনি বলেন, ‘আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে দীর্ঘদিন পর খেলা আসলে অনেক কঠিন। ঘরোয়া ক্রিকেট থেকে হঠাৎ করে আন্তর্জাতিক এবং বিশ্বকাপের মতো একটি ইভেন্টে মানিয়ে নেয়া কিন্তু টপ কোয়ালিটির ক্রিকেটার ছাড়া বেশ কঠিন। এরপরেও আমরা এটি মাথায় রেখেছি যে, আমরা যেহেতু আয়ারল্যান্ডে যাচ্ছি, সেখানে যে ত্রিদেশীয় সিরিজটি আছে সেখানে একটি দুটি ম্যাচ খেলার সুযোগ পেলে সে নিজেও বুঝতে পারবে এবং আমরাও বুঝতে পারবো যদি কোনো ক্রিকেটার ইনজুরিতে পড়ে তাহলে তার কথা মাথায় আছে।’


ADVERTISEMENT

Contact Us: 8 Offtake Street, Leppington, NSW- 2569, Australia. Phone: +61 2 96183432, E-mail: editor@banglakatha.com.au , news.banglakatha@gmail.com

ADVERTISEMENT