Main Menu

র‌্যাগিংয়ে পেটানো ভাইরাল, মাইলস্টোন বলছে ফানি ভিডিও!

রাজধানীর উত্তরার মাইলস্টোন স্কুল এন্ড কলেজে একজন শিক্ষার্থীকে ঘিরে ধরে ৯ জন শিক্ষার্থীর একটি র‌্যাগিংয়ের ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে ভাইরাল হয়েছে। 

গতকাল শুক্রবার (৮ ফেব্রুয়ারি) সকাল থেকেই ফেসবুকের টাইমলাইনে ঘুরছে র‌্যাগিংয়ের ১ মিনিট ৫০ সেকেন্ডের ওই ভিডিওটি। 

তবে কলেজ কর্তৃপক্ষ বলছে, এ ধরনের কোনও ঘটনা সেখানে ঘটেনি। যে ভিডিওটি ভাইরাল করা হয়েছে সেটা বানানো। যে ছাত্রকে র‍্যাগিং করা হয়েছে সেই ছাত্র নিজেই স্বীকার করেছে এ ভিডিও তারা ফান করে করেছে।

ভিডিওটিতে দেখা যাচ্ছে, গালাগালি, মারধর শেষে একটির পর একটি স্কুল ব্যাগ তার কাঁধে চাপিয়ে দিয়ে কান ধরে ওঠবস করানো হচ্ছে। একজন শিক্ষার্থী প্রশ্ন করছে, ‘নাম জানি কী তোর?’ অপর একজন চিৎকার করে বলছে, ‘ভিডিও কর ভিডিও কর। এই অর্ণব ভিডিও কর।’ 

এর মধ্যেই ভিডিওতে দেখা যায়, র‌্যাগিংয়ের শিকার সেই ছেলেটি গিয়ে শ্রেণিকক্ষের দরজা বন্ধ করে দেয়। একজন ছাত্র তাকে বলে, গেটের মধ্যে ঢোকার সময় একটা বেয়াদবি করছস। আরিফ জবাবে বলে, বুঝতে পারি নাই ভাইয়া। তখন তাকে কানে ধরতে বলা হয়।

আরিফ একপর্যায়ে হেসে ফেলে। তখন সে হাসছে কেন বলে প্রশ্ন তুলে একজন তাকে মারতে শুরু করে। মারতে নিষেধ করতে শোনা যায় অন্যদের। আরিফ বলতে থাকে, বুঝি নাই, ভাই। সবাই মিলে ঘিরে ধরে তাকে কানে ধরতে বলে। আরিফকে উবু হয়ে বসে দুহাত দিয়ে চোখ মুছতে দেখা যায়। এক এক করে সব ছাত্রের ব্যাগ তার কাঁধে চাপিয়ে ওঠবস করানো হয়। ভিডিও ক্লিপের শেষে আরিফকে ব্যাগসহ শ্রেণিকক্ষ থেকে বেরিয়ে যেতে দেখা যায়।

ভাইরাল ভিডিও নিয়ে প্রতিষ্ঠানটির স্কুল শাখার অধ্যক্ষ মো. আশরাফ হোসেন ব্রেকিংনিউজকে বলেন, ‘আমাদের প্রত্যেকটা রুমে সিসিটিভি ক্যামেরা আছে। এ ধরনের কোনও ঘটনাই নাই। শিক্ষার্থী এটা (ভিডিও) দিয়েছে সে আমাদের কাছে বলছে স্যার এটা আমরা ফান করছি। আমাদের ভয়ে ছেলেরা অস্থির থাকে সবসময়। এ সমস্ত করার কোনও সুযোগ নাই।’ 

এদিকে মাইলস্টোন স্কুল এন্ড কলেজের সাবেক শিক্ষার্থীরা বলছে, বিষয়টি কলেজের জন্য অনেক লজ্জাজনক। 

নাজিম আল শমসের নামের এক প্রাক্তন শিক্ষার্থী ব্রেকিংনিউজকে বলেন, ‘আমাদের কলেজে এ ধরনের কোনও র‌্যাগিং আগে ছিল না, বিষয়টি নতুন যুক্ত হয়েছে। র‌্যাগিংয়ের নামে এমন নির্যাতন অবিলম্বে বন্ধ করা উচিত। এসব বিষয় কলেজ কর্তৃপক্ষের ভাবার সময় হয়েছে। জড়িত শিক্ষার্থীদের বিরুদ্ধে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দিলে পরে কেউ আর এমনটা করতে পারবে না।’


ADVERTISEMENT

Contact Us: 8 Offtake Street, Leppington, NSW- 2569, Australia. Phone: +61 2 96183432, E-mail: editor@banglakatha.com.au , news.banglakatha@gmail.com

ADVERTISEMENT