Main Menu

অস্ট্রেলিয়ায় যুবদলের উদ্যোগে তারেক রহমানের ৫৪তম জন্মবার্ষিকী উদযাপিত

বিএনপির ভারপ্রাপ্ত  চেয়ারপার্সন দেশনায়ক তারেক রহমানের ৫৪তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষ্যে এক আলোচনা সভা গত ২৫শে নভেম্বরষ২০১৮ রবিবার সিডনির রকডেলস্থ পালকি ফাংশন সেন্টারে  অনুষ্ঠিত হয়।                   

 বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী যুবদল অস্ট্রেলিয়ার সংগ্রামী সভাপতি ইয়াসির আরাফাত সবুজের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন বিএনপি অস্ট্রেলিয়ার প্রধান উপদেষ্ঠা ও সাবেক আহবায়ক মোঃদেলোয়ার হোসেন,

প্রধান বক্তা হিসাবে বক্তব্য রাখেন বিএনপি অস্ট্রেলিয়ার সভাপতি মোঃমোসলেহ উদ্দিন হাওলাদার আরিফ

,বিশেষ অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন বিএনপি অস্ট্রেলিয়ার সাধারন সম্পাদক আলহাজ্ব মোঃনাসিম উদ্দিন আহম্মেদ,যুগ্ম সাধারন সম্পাদক ইন্জিনিয়ার কামরুল ইসলাম শামীম,সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুস সামাদ শিবলু।                      

 যুবদল অস্ট্রেলিয়ার সিনিয়র যুগ্ম সাধারন সম্পাদক মোহাম্মদ জাকির হোসেন রাজুর পরিচালনায় বিশেষ বক্তা হিসাবে বক্তব্য রাখেন যুবদলের সাধারন সম্পাদক খাইরুল কবির পিন্টু,সাংগঠনিক সম্পাদক জাবেল হক জাবেদ,নিউসাউথওয়েলস বিএনপির সভাপতি অনুপ আন্তনী গোমেজ,বিএনপির প্রচার সম্পাদক শেখ আব্দুল্লাহ আল মামুন,ধর্মবিষয়ক সম্পাদক দিলোয়ার হোসেন,আরিফুল ইসলাম,পংকজ বিশ্বাস,মাসুম বিল্লাহ,শামছুল আরেফিন রিয়াদ,সৈয়দ আহম্মেদ,হাবিব মিয়া প্রমূখ।  

মোঃমোসলেহ উদ্দিন হাওলাদার আরিফ বলেন, দেশাত্মবোধে জারিত হওয়া অপার সম্ভাবনাময় সেদিনের তারুণ্যদীপ্ত নেতার অভ্যুদয় দেশি-বিদেশি চক্রান্তকারীরা কখনোই মেনে নিতে পারেনি। তাই ১/১১-তে মইনউদ্দিন-ফখরুদ্দীনের সরকার তারেক রহমানকে নিঃশেষ করার জন্য মামলা, শারীরিক নির্যাতন ও ক্রমাগত কুৎসা রটনার ধারা বর্ষণ চালায়। কিন্তু তারপরও তাকে নীরব ও  বিচলিত করা যায়নি, দুর্বল করা যায়নি তার অটুট মনোবলকে। যাদের আন্দোলনের ফসল ছিল ১/১১ সরকার তারা ক্ষমতায় এসেই তারেক রহমানের বিরুদ্ধে নানামুখী চক্রান্তে আরও কয়েক ধাপ এগিয়ে যায়। তার নামে অসংখ্য মামলা দায়ের করে একের পর এক সাজা দিয়ে যাচ্ছে বিচার বিভাগকে নিয়ন্ত্রণে নিয়ে। তবুও তারা তারেক রহমানকে দুর্বল করতে পারেনি। 

আহবায়ক মোঃদেলোয়ার হোসেন বলেন, এখনও দুঃশাসনের হুমকি প্রতিদিনই তার ওপর বর্ষিত হচ্ছে, তারেক রহমানকে চক্রান্তজালে আটকাতে চলছে নিরন্তর বহুমুখী ষড়যন্ত্র। ক্ষমতা জবরদখলকারীরা অবিরাম কটূক্তি ও কুরুচিপূর্ণ বক্তব্য দিয়ে গেলেও তারেক রহমানকে তার বিশ্বাস ও আদর্শ থেকে বিন্দুমাত্র টলাতে পারেনি। আওয়ামী লীগ সরকারের নির্যাতন, নিপীড়ন, দুঃশাসনে দেশ আজ ধ্বংসের সর্বশেষ প্রান্তে উপনীত হয়েছে। দেশের সার্বভৌমত্ব ও স্বাধীনতা আজ হুমকির মুখে। বহুদলীয় গণতন্ত্রের শেষ চিহ্নটুকু মুছে ফেলে আবারও একদলীয় শাসনের নিষ্পেষণে সারা জাতিকে বন্দি করা হয়েছে। এই দুঃসময়ে তারেক রহমানের নিঃশংক মনোবল ও দৃঢ় নেতৃত্ব দুঃশাসনের বিরুদ্ধে জাতীয়তাবাদী শক্তিকে উজ্জীবিত করছে।

 ইয়াসির আরাফাত সবুজ বলেন,আগামী দিনে নির্বাচনে ধানের শীষের ভোটের বিপ্লবের মাধ্যমে বাংলাদেশের স্বাধীনতা স্বার্বভৌমত্ব এবং ভোটাধিকার ফিরিয়ে দিয়ে জনগনের শাসন প্রতিষ্ঠা লাভ করবেএবং বেগম খালেদা জিয়া মুক্তি পাবে এবং আগামী বছর তারেক রহমানকে বীরের বেশে বাংলাদেশে ফিরে আনব এবং এক সাথে সঙ্গে নিয়ে জন্ম দিন উদযাপন করব।


ADVERTISEMENT

Contact Us: 8 Offtake Street, Leppington, NSW- 2569, Australia. Phone: +61 2 96183432, E-mail: editor@banglakatha.com.au , news.banglakatha@gmail.com

ADVERTISEMENT