Main Menu

জীবন যাবে, তবু বেগম জিয়াকে মুক্ত করব: মান্না

জীবন যাবে তবু বেগম খালেদা জিয়াকে মুক্ত করবেন বলে মন্তব্য করেছেন জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের অন্যতম নেতা ও নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না। মঙ্গলবার দুপুরে সাত দফা দাবিতে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের রাজধানী সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের জনসভায়  তিনি এ কথা বলেন।

মাহমুদুর রহমান মান্না বলেন, বেগম খালেদা জিয়া অসুস্থ। হাঁটতে পারেন না। চলতে পারেন না। সরকার বেগম খালোদা জিয়াকে জেলে মেরে ফেলতে চায়। কিন্তু তাকে মরতে দেব না। জীবন যাবে, তবু বেগম খালোদা জিয়াকে মুক্ত করব।

‘আজকের এই ভিডিও প্রধানমন্ত্রী, আইজিকে পাঠান। দেখান মানুষ বেগম জিয়াকে কত ভালোবাসে। মানুষ গণতন্ত্রের পক্ষে। অত্যাচারীর বিপক্ষে।’

সংসদ বাতিল করার দাবি জানিয়ে মান্না বলেন, সামনে নির্বাচন। মাত্র ২ মাস সময়। আমাদের এক নাম্বার কথা-শেখ হাসিনার অধীনে কোন নির্বাচন নয়। একসাথে দুই সংসদ চলে না। সংসদ রেখে নির্বাচন হবে না। বাতিল করতে হবে।

‘এবার সংলাপে সবকিছু লিখিত থাকতে হবে। মুখে মুখে কথা চলবে না। মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার করতে হবে। গ্রেপ্তার বন্ধ করতে হবে।’

‘সংবিধানের মধ্যে থেকে যে নতুন সরকার হবে প্রধানমন্ত্রী হিসেবে সেখানে শেখ হাসিনা থাকতে পারবেন না। সরকার দাবি না মানলে রাজপথ প্রকম্পিত করে আন্দোলনের মাধ্যমে দাবি আদায় করা হবে।’

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায় সরকারকে হুঁশিয়ারি দিয়ে বলেছেন, বেগম খালেদা জিয়া স্বাধীনতার ঘোষকের স্ত্রী। তিন তিন বারের প্রধানমন্ত্রী। তার প্যারোলে মুক্তির প্রয়োজন নেই। খালেদা জিয়াকে অনুকম্পা করবে এমন কেউ দেশে নেই। সময় এসেছে আপনাদেরকে প্যারোলে কবরে যেতে হবে৷

তিনি আরো বলেন, এই মঞ্চে যারা আছেন সবাই রণাঙ্গনের মুক্তিযোদ্ধা। দেখুন। সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ মুক্তিযুদ্ধের দল বিএনপি। এখানে সব মুক্তিযোদ্ধা এক হয়েছেন। আজকে যারা গণতন্ত্রের বিশ্বাস করে না তারা সবাই স্বাধীনতা বিরোধী।

‘বিশ্বাস করেন, শেখ হাসিনাকে রেখে কোনো সুষ্ঠু নির্বাচন হবে না। বেগম খালেদা জিয়াকে  মুক্তি না দিয়ে সুষ্ঠু নির্বাচন হয় না। গৃহপালিত নির্বাচন কমিশন দিয়ে সুষ্ঠু নির্বাচন হবে না। সেনা বাহিনী ছাড়া সুষ্ঠু নির্বাচন হবে না। যারা এগুলোতে বিশ্বাস করেন, তাদের জন্য শেষ কথা- ৭ দফা দাবি বাস্তবায়ন ছাড়া নির্বাচন নয়।’

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার জমিরউদ্দীন সরকারও বলেন, খালেদা জিয়ার প্যারোলে মুক্তি নয়। নিঃশর্ত মুক্তি দিতে হবে। এর বিকল্প নয়। ব্যারিস্টার মওদুদও বক্তব্য একই দাবি করেন।

দেশের সংবিধানের অন্যতম প্রণেতা ড. কামাল হোসেনের নেতৃত্বাধীন এ রাজনৈতিক জোটের জনসভা দুপুর ২টায় শুরুর কথা থাকলেও সকাল থেকেই নেতাকর্মীরা সভাস্থলে আসতে থাকেন।

সরকারের পদত্যাগ, নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে অবাধ, সুষ্ঠু নির্বাচন ও খালেদা জিয়ার নিঃশর্ত মুক্তিসহ সাত দফা দাবিতে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের রাজধানী সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের জনসভায় আয়োজন করেছে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট।


ADVERTISEMENT

Contact Us: 8 Offtake Street, Leppington, NSW- 2569, Australia. Phone: +61 2 96183432, E-mail: editor@banglakatha.com.au , news.banglakatha@gmail.com

ADVERTISEMENT