Main Menu

কান্নায় ভেঙে পড়লেন ফখরুল

সদ্যপ্রয়াত বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য তরিকুল ইসলামের মরদেহ দেখেই কান্নায় ভেঙে পড়েন দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। রবিবার (৪ নভেম্বর) সন্ধ্যায় রাজধানীর অ্যাপেলো হাসপাতালে এই দৃশ্য দেখা যায়।

প্রবীণ রাজনীতিক ও বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য তরিকুল ইসলাম রবিবার (৪ নভেম্বর) রাজধানীর অ্যাপোলো হাসপাতালে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৭২ বছর।

সন্ধ্যায় অ্যাপেলো হাসপাতালে গিয়ে আবেগ আপ্লুত মির্জা ফখরুল কাঁদতে কাঁদতে বলেন, ‘তরিকুল ভাই এভাবে চলে যাবেন, মেনে নিতে পারছি না। আমি কোনভাবে বিশ্বাস করতে পারছি না, ভাই নেই। বাংলাদেশের স্বাধীনতা যুদ্ধসহ গণতান্ত্রিক আন্দোলনে তার অবদান এবং তিনি ছিলেন জাতীয়তা দর্শনের আপাদমস্তক একজন নেতা।’

এ সময় প্রয়াত নেতাকে দেখতে গিয়েছিলেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান আবদুল্লাহ আল নোমান। তিনি বলেন, ‘তরিকুল ভাই আমাদের নেতা ছিলেন। ৫০ বছর এক সাথে আমরা। মজলুম জননেতা তরিকুল ভাই আপাদমস্তক রাজনীতিবিদ ছিলেন।’

এদিকে, পরিবারের সদস্যরা জানিয়েছে, সন্ধ্যা ৭টায় তরিকুল ইসলামের মরদেহ তার শান্তিনগরের বাসায় নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে পরিবারের সদস্যরা শ্রদ্ধা নিবেদনের পর বারডেম হাসপাতালের হিমঘরে রাখা হবে।

সোমবার (৫ নভেম্বর) সকাল দশটায় রাজধানীর নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে তরিকুল ইসলামের প্রথম জানাজা অনুষ্ঠিত হবে। এরপরে জাতীয় সংসদ ভবনের দক্ষিণ প্লাজায় জানাজার পর তার মরদেহ নিয়ে যাওয়া হবে যশোরে। সেখানে জানাজার পর পারিবারিক কবরস্থানে তাকে দাফন করা হবে প্রবীণ এ রাজনীতিককে।


ADVERTISEMENT

Contact Us: 8 Offtake Street, Leppington, NSW- 2569, Australia. Phone: +61 2 96183432, E-mail: editor@banglakatha.com.au , news.banglakatha@gmail.com

ADVERTISEMENT